fbpx

Daily Sylheter Somoy

সেপ্টেম্বর ৩০, ২০২০

গ্রুপিংয়ের রাজনীতিতে আমি বিশ্বাসী নই -আজাদুর রহমান আজাদ

গ্রুপিংয়ের রাজনীতিতে আমি বিশ্বাসী নই -আজাদুর রহমান আজাদ

গত কয়েকদিন ধরে এমসি কলেজ ক্যাম্পাস, কলেজের ছাত্রাবাস ও টিলাগড় কেন্দ্রিক ছাত্রলীগের বিভিন্ন অপকর্ম নিয়ে গণমাধ্যমে সংবাদ প্রকাশ হচ্ছে। কিছু কিছু সংবাদে অনাকাঙ্খিতভাবে আমার নামও জড়ানো হয়েছে। যা খুবই দু:খজনক। প্রায় ২৬ বছর আগে আমি ছাত্রলীগের রাজনীতি শেষ করে যুবলীগ করে বর্তমানে আওয়ামী লীগের কর্মী হিসেবে রাজনীতিতে সক্রিয় আছি। আমি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আদর্শের একজন সৈনিক, আমার নেত্রী শেখ হাসিনা এবং আমি তারই রাজনীতি করি। আমার কোন গ্রুপ নেই। আমি গ্রুপিংয়ের রাজনীতিতে বিশ^াসীও নই। এমসি কলেজ, ছাত্রাবাস ও টিলাগড় কেন্দ্রিক ছাত্রলীগের রাজনীতির সাথে আমার কোন সম্পৃক্ততা নেই।
স্কুলে পড়ালেখার সময় থেকে আমি বঙ্গবন্ধুর আদর্শে উজ্জীবিত হয়ে ছাত্রলীগের রাজনীতিতে সম্পৃক্ত হই। এরপর জেলা ছাত্রলীগের দায়িত্ব পালন করে ১৯৯৬ সালে যুবলীগের রাজনীতিতে যুক্ত হই। জেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্বপালনকালেই ২০০৩ সালে আমি সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের প্রতিষ্ঠা কমিটির তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক নির্বাচিত হই। গত কমিটিতে আমি শিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক ছিলাম। আওয়ামী লীগের একজন কর্মী হিসেবে গত ১৭ বছর থেকে আমি রাজনৈতিক কার্যক্রম চালিয়ে আসছি। তাই গত ২৬ বছর থেকে আমি ছাত্রলীগের রাজনীতি থেকে দূরে। একজন জনপ্রতিনিধি (সিটি করপোরেশনের চারবারের কাউন্সিলর) হিসেবেও আমি দীর্ঘদিন ধরে মানুষের সেবায় নিজেকে নিয়োজিত রেখেছি।
এমসি কলেজ সংলগ্ন টিলাগড়ে আমার স্থায়ী ও আদি নিবাস হওয়ায় ওই এলাকায় ছাত্রলীগ নেতাকর্মীরা কোন অপকর্ম করলেই রাজনৈতিকভাবে আমাকে হেয় করতে মহলবিশেষ আমার নাম জড়ানোর চেষ্টা করেন। আমি কখনো কোন অপরাধে মদদ বা অপরাধীকে আশ্রয়-প্রশ্রয় দেইনি। কোন অপরাধীর পক্ষে থানা-পুলিশেও কোনদিন তদবির করিনি। বরং অপরাধীদের বিরুদ্ধে কঠোর ভূমিকা নিতে সবসময় আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে সহযোগিতা করেছি। এমসি কলেজ ছাত্রাবাসে যারা ন্যাক্কারজনক ঘটনা ঘটিয়েছে তাদের সাথে আমার কোন সম্পর্ক নেই। এ ঘটনার পর কারা অপরাধীদের রক্ষার চেষ্টা করেছে, কাদের সাথে অপরাধীদের যোগাযোগ ছিল তা সনাক্ত করলেই অপরাধীদের আশ্রয়-প্রশ্রয়দাতাদের নাম বের হয়ে আসবে।
আমি দৃঢ়কন্ঠে আবারো বলতে চাই, ছাত্রলীগের সাথে আমার কোন সম্পর্ক নেই। আমার নামে কোন গ্রুপ নেই। আমি ছাত্রলীগের রাজনীতি দেখভাল করি না। আমি বঙ্গবন্ধুর আদর্শের সৈনিক ও শেখ হাসিনার একজন কর্মী হিসেবে আওয়ামী লীগের রাজনীতি করি। তাই ছাত্রলীগের ভাল-মন্দ কোন কর্মকান্ডের সাথে আমার নাম না জড়ানোর জন্য সাংবাদিক ভাইদের প্রতি অনুরোধ করছি।-বিজ্ঞপ্তি

Sharing is caring!


সর্বশেষ সংবাদ

সিলেটে আসছেন মির্জা ফখরুল

সিলেটে আসছেন মির্জা ফখরুল

নিজস্ব প্রতিবেদক সিলেট আসছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। আগামী ২৪ ও ২৫ অক্টোবর দুদিন তার সিলেট সফর করার

মেয়র আরিফের বিরুদ্ধে জোরপূর্বক জায়গা দখলের অভিযোগ

মেয়র আরিফের বিরুদ্ধে জোরপূর্বক জায়গা দখলের অভিযোগ

লন্ডন প্রতিনিধি সিলেট সিটি করপোরেশনে মেয়র আরিফুল হকের বিরুদ্ধে লন্ডনে এক সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে। সোমবার রাত সাড়ে ৯টায় হোয়াইটচ্যাপলের

আজ পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবী (সা.)

আজ পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবী (সা.)

অনলাইন ডেস্ক আজ ১২ই রবিউল আউয়াল। পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবী (সা.)। ১৪৪৩ বছর আগের এই দিনে আরবের পবিত্র মক্কা নগরীতে বিশ্বনবী

ওমানকে হারালো বাংলাদেশ

ওমানকে হারালো বাংলাদেশ

অনলাইন ডেস্ক নিজের শেষ ওভারে জোড়া আঘাত হানেন সাকিব আল হাসান। এতে ১৭ ওভার শেষে ওমানের সংগ্রহ দাঁড়ায় ১০৭/৭-এ। চার

প্রতিবন্ধীদের ভোগান্তি কমিয়ে আনতে হবে : পরিকল্পনামন্ত্রী

প্রতিবন্ধীদের ভোগান্তি কমিয়ে আনতে হবে : পরিকল্পনামন্ত্রী

অনলাইন ডেস্ক পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মান্নান বলেছেন, সমাজের একটা অংশ (ডিসএবিলিটি বা প্রতিবন্ধিতা যাই বলি না কেন) নানা কারণে ভুগছে।

কুমিল্লায় হামলার মাস্টারমাইন্ডকে গ্রেফতার করা হয়েছে: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

কুমিল্লায় হামলার মাস্টারমাইন্ডকে গ্রেফতার করা হয়েছে: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

অনলাইন ডেস্ক পররাষ্ট্রমন্ত্রী একে আবদুল মোমেন বলেছেন, কুমিল্লায় মন্দিরে হামলার মাস্টারমাইন্ডকে ইতোমধ্যেই গ্রেফতার করা হয়েছে। পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে পাঠানো বিবৃতিতে

কানাইঘাটে দেড় মাসেও সন্ধান মিলেনি নিখোঁজ ওলিউর রহমানের

কানাইঘাটে দেড় মাসেও সন্ধান মিলেনি নিখোঁজ ওলিউর রহমানের

কানাইঘাট প্রতিনিধি কানাইঘাট উপজেলার ঝিঙ্গাবাড়ী ইউপির পাত্রমাটি গ্রামের নিখোঁজ ওলিউর রহমান (৩১)’র সন্ধান এখনো মিলেনি। গত ৩১ আগস্ট তিনি সিলেট

কানাইঘাটে মাল্টা চাষে সফল কৃষক মুহাম্মদ আলী

কানাইঘাটে মাল্টা চাষে সফল কৃষক মুহাম্মদ আলী

কানাইঘাট প্রতিনিধি কৃষক মুহাম্মদ আলী ছোট কাল থেকে বাবার সাথে কৃষি কাজে জড়িত ছিলেন। এরপর জীবনের তাগিদে তরুণ বয়সে পাড়ি