fbpx

Daily Sylheter Somoy

সেপ্টেম্বর ২১, ২০২০

ছাদে-বারান্দায় পানির জারে সবজি চাষ

ছাদে-বারান্দায় পানির জারে সবজি চাষ

 

অনলাইন ডেস্ক

ছাদে বিভিন্ন আকারের প্লাস্টিকের অবকাঠামোতে একসঙ্গে অনেক গাছ বেড়ে উঠছে। গাছগুলো বড় হচ্ছে পানিতে। এতে মাটির কোনো কারবারই নেই। ছাদের অল্প জায়গা, রান্নাঘর বা কেউ চাইলে অফিসের ডেস্কেও পানিতে এভাবে গাছ লাগাতে পারেন। এতে ঘর সাজানোর কাজ চলবে, একইভাবে কাজের অবসরে গাছ থেকে ছিঁড়ে কেউ একটু পুদিনাপাতা মুখে দিয়ে চিবাতেও পারেন। মাটি ছাড়া পানিতে সবজি চাষের এ আধুনিক পদ্ধতির নাম হাইড্রোপনিক্স।

বেসরকারিভাবে গ্রিন সেভারস নামের একটি সামাজিক উদ্যোগ রাজধানীর আগারগাঁওয়ে অফিস ভবনের ছাদে গত বছর থেকে জল চাষের মধ্যে আধুনিক এ পদ্ধতি নিয়ে কাজ করছে। এ সামাজিক উদ্যোগের প্রতিষ্ঠাতা আহসান রনিসহ অন্যরা হাতে–কলমে কাজ করছেন।

সম্প্রতি আগারগাঁওয়ে গ্রিন সেভারসের কার্যালয়ে গিয়ে দেখা যায়, ছাদের একটি অংশে নেট শেড বা সবুজ ছাউনি দিয়ে এ পদ্ধতিতে বরবটিসহ বিভিন্ন সবজি ফলানো হচ্ছে। শুধু ছাদ নয়, অফিসের ডেস্কেও এলইডি বাতির সাহায্যে পাতা জাতীয় বিভিন্ন গাছ বা সবজি ফলানো হচ্ছে। আহসান রনি প্রতিবেদকের সঙ্গে কথা বলার ফাঁকে সেই গাছ থেকে একটু পুদিনাপাতা স্বাদের বেসিল খেয়েও দেখালেন।

আহসান রনির সঙ্গে আলাপচারিতায় জানা গেল এ পদ্ধতির চাষাবাদের নানা সম্ভাবনার দিক। তিনি বলেন, এ পদ্ধতি নগর কৃষিতে বড় সম্ভাবনা হিসেবে দেখা দিয়েছে। উন্নত বিশ্বে বিশেষ করে ইউরোপ, আমেরিকা, জাপান, তাইওয়ান, চীন, থাইল্যান্ড, মালয়েশিয়া এবং মধ্যপ্রাচ্যের বিভিন্ন দেশে বাণিজ্যিকভাবে এ পদ্ধতিতে সবজি ও ফল উৎপাদন করা হচ্ছে। বাংলাদেশে সরকারি পর্যায়ে নানা গবেষণা হচ্ছে। গ্রিন সেভারসের মাধ্যমে কয়েকটি হোটেল লেটুসসহ বিভিন্ন পাতা জাতীয় সবজির চাহিদা মেটাতে

এ পদ্ধতি নিয়ে কাজ শুরু করেছে। কয়েকটি ফার্মও এগিয়ে এসেছে। আগামী ১০ বছরের মধ্যে একটি পর্যায়ে চলে যাবে বলে মনে হচ্ছে।

নতুন এ পদ্ধতির উদ্যোক্তারা জানালেন, কম জায়গা ও কম সময়ে অধিক ফলন ফলানো সম্ভব। শহুরে জীবনে গাছ লাগানোর জন্য ভালো মাটি পাওয়া কঠিন হয়ে যাচ্ছে। বিভিন্ন এলাকায় পানির সংকট লেগেই থাকে। শহুরে ছাদবাগান জনপ্রিয় হলেও মশা উৎপাদন, মাটিতে ছাদের ক্ষতি হওয়ার সম্ভাবনাসহ বিভিন্ন চ্যালেঞ্জ দেখা দিয়েছে। নতুন পদ্ধতিতে গাছ লাগাতে মাটি লাগছে না। গাছে মাটিবাহিত রোগ হওয়ার সম্ভাবনাও নেই। কীটনাশক ব্যবহার করতে হয় না।

ছাদবাগানে এক দিনে যে পরিমাণ পানি লাগে তা দিয়ে নতুন পদ্ধতির চাষাবাদে প্রায় দুই মাসের পানি সরবরাহ করা সম্ভব হয়। প্রতিবছর মাটি পাল্টানো, টব নষ্ট হয়ে যাওয়া, নিয়মিত গাছের পরিচর্যা করা, পানি দেওয়ার ঝামেলাগুলোও পোহাতে হয় না নতুন পদ্ধতির চাষাবাদে। সব মিলিয়ে এটি একটি সাশ্রয়ী ও টেকসই পদ্ধতি। লেটুস, স্ট্রবেরি, ক্যাপসিকাম, টমেটো, তরমুজ, শসা, বেগুন, কাঁচা মরিচ, লাউ, ফুলকপি, বাঁধাকপি, ব্রকলি, মটরশুঁটি, বরবটি ইত্যাদির পাশাপাশি বিভিন্ন জাতের ফুল চাষ করা যায়। যেকোনো মৌসুমেই ফসল ফলানো যায়।

হাইড্রোপনিক্স পদ্ধতিতে প্রাথমিক পর্যায়ে পরিবারের চাহিদা অনুযায়ী অবকাঠামো বসানোতে তিন হাজার টাকা থেকে শুরু করে ১৫ হাজারের বেশি টাকা খরচ করতে হয় বলে জানালেন আহসান রনি। বলেন, এরপর গাছের চারা এবং পানিতে মেশানোর জন্য পুষ্টি উপাদান নিউট্রিয়েন্ট বাবদ কিছু খরচ করতে হয়। নিউট্রিয়েন্ট বাবদ ৮০০ টাকায় প্রায় ৫ থেকে ৬ মাসের পুষ্টি চাদিহা পূরণ করা সম্ভব হয়। অর্থাৎ এ খাতে মাসে খরচ ১০০ টাকারও কম। পানি চলমান রাখার জন্য ৯ থেকে ১৮ ওয়াটের মোটর ব্যবহার করতে হয়। এ মোটর গাছের চাহিদা অনুযায়ী থেমে থেমে চলে, এতে মাসে বিদ্যুৎ বিল ৫০ থেকে ৬০ টাকার মতো আসে। সাধারণ পদ্ধতিতে মরিচ বা অন্যান্য ফলন পেতে দেড় থেকে দুই মাস সময় লাগলেও আধুনিক এ পদ্ধতিতে এক মাসের মধ্যেই ফলন পাওয়া সম্ভব হয়।

২০০৯-২০১০ সালে আহসান রনি গ্রিন সেভারসের মাধ্যমে ছাদবাগান নিয়ে কাজ শুরু করেছিলেন। অশোকা ফেলো আহসান জানালেন, তিন বছর আগে যুক্তরাষ্ট্রের ফরেস্ট সার্ভিসের আরবান ফরেস্ট্রি প্রোগ্রামে অংশ নেওয়ার সুযোগ পেয়েছিলেন। সেখানকার অভিজ্ঞতায় গত বছর ফার্মটেক ইন্টারন্যাশনালের সঙ্গে যৌথভাবে হাইড্রোপনিক্স পদ্ধতি নিয়ে কাজ শুরু করেন।

আহসান জানালেন, চলতি বছরে নগর কৃষকদের অনেকেই নতুন পদ্ধতিটির প্রতি আগ্রহ দেখাচ্ছেন। গ্রিন সেভারস থেকে অবকাঠামো বসানো থেকে শুরু করে নিউট্রিয়েন্ট সরবরাহ, গাছের অভিজ্ঞ চিকিৎসকদের দিয়ে পরবর্তী পরিচর্যাসহ বিভিন্নভাবে সহায়তা করছে।

আহসান রনি জানালেন, পুষ্টি উপাদান নিউট্রিয়েন্ট, গাছ লাগানোর বিভিন্ন অবকাঠামো দেশের বাইরে থেকে আনতে হচ্ছে। সরকার যদি এ বিষয়ে উদ্যোগী ও সদয় হয় তবে নতুন পদ্ধতি নিয়ে বহুদূর যাওয়া সম্ভব হবে। গ্রিন সেভারস দীর্ঘদিন ধরে ক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীদের সঙ্গে গাছ বিষয়ে বিভিন্ন কার্যক্রম পরিচালনা করছে। এই সবুজ প্রজন্ম নিজেরাই উদ্বুদ্ধ হয়ে ভবিষ্যতে সবুজ পৃথিবী গড়ে তুলবে বলে আহসান রনির বিশ্বাস।

Sharing is caring!


সর্বশেষ সংবাদ

তিন-চার দিনের মধ্যে বিমানবন্দরে আরটি-পিসিআর ল্যাব বসবে

তিন-চার দিনের মধ্যে বিমানবন্দরে আরটি-পিসিআর ল্যাব বসবে

অনলাইন ডেস্ক তিন-চার দিনের মধ্যে হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে আরটি-পিসিআর ল্যাব বসিয়ে করোনা পরীক্ষা সম্ভব হবে। সিভিল এভিয়েশনের চেয়ারম্যান এয়ার

কমলগঞ্জের মুন্সিবাজার ব্যবসায়ী সমিতির মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল

কমলগঞ্জের মুন্সিবাজার ব্যবসায়ী সমিতির মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল

কমলগঞ্জ(মৌলভীবাজার)প্রতিনিধি: মৌলভীবাজার জেলার কমলগঞ্জ উপজেলার মুন্সিবাজার ব্যবসায়ী সমিতি ও রহিমপুর ইউনিয়ন আওয়ামিলীগের সভাপতি ও কমলগঞ্জ উপজেলা আওয়ামিলীগ এর সাংগঠনিক সম্পাদক

এসপিএল ২০২১ আয়োজক কমিটির সাথে ডা: শিপলুর মতবিনিময়

এসপিএল ২০২১ আয়োজক কমিটির সাথে ডা: শিপলুর মতবিনিময়

সিলেট প্রিমিয়ার লীগ ২০২১ ইং ১০০ বলের ক্রিকেট টূর্ণামেন্ট আয়োজনের লক্ষ্যে আয়োজক কমিটি ও উপদেষ্টামন্ডলীর সাথে সাবেক মেয়রপুত্র, রাগীব রাবেয়া

সিলেটের চিকিৎসক ও স্বাস্থ্য কর্মীদের প্রধানমন্ত্রীর উপহার প্রদান অনুষ্ঠান

সিলেটের চিকিৎসক ও স্বাস্থ্য কর্মীদের প্রধানমন্ত্রীর উপহার প্রদান অনুষ্ঠান

নিজস্ব প্রতিবেদক জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে আওয়ামীলীগ আকাশ, সমুদ্র জয় করে করোনা যুদ্ধে জয়ী হয়েছে। জননেত্রী শেখ হাসিনার উৎসাহে সিলেটের

আবু দৌলত মডেল মাদরাসায় পুরস্কার বিতরণ ও সংবর্ধনা

আবু দৌলত মডেল মাদরাসায় পুরস্কার বিতরণ ও সংবর্ধনা

অনলাইন নিউজ পোর্টাল সিলেট দিগন্ত ডটকম এর উদ্যোগে ও সিলেট ট্যুরিস্ট গাইড এসোসিয়েশনের সহযোগিতায় সাধারণ জ্ঞান প্রতিযোগিতায় বিজয়ী শিক্ষার্থীদের মধ্যে

সাহেবেরগাঁও যুব কল্যাণ পরিষদের কমিটি গঠিত

সাহেবেরগাঁও যুব কল্যাণ পরিষদের কমিটি গঠিত

সিলেট শহরতলীর টুকেরবাজার ইউনিয়নের সাহেবেরগাঁওয়ে সাহেবেরগাঁও যুব কল্যাণ পরিষদের কমিটি গঠন উপলক্ষে এক আলোচনা সভা গত ১৭ সেপ্টেম্বর শুক্রবার রাত

অন্তরের শুদ্ধতা মানুষের বাহ্যিক অঙ্গ-প্রত্যঙ্গকে গুনাহমুক্ত রাখে

অন্তরের শুদ্ধতা মানুষের বাহ্যিক অঙ্গ-প্রত্যঙ্গকে গুনাহমুক্ত রাখে

অনলাইন ডেস্ক মানুষ ভালো-মন্দে পরিচালিত হয় অন্তরের মাধ্যমে। যার অন্তর যত বেশি শুদ্ধ ও সুস্থ, তার চালচলন, আমল-আখলাক তত বেশি

বিদ্যুৎ ও সিটির পানি বিল প্রত্যাহারের দাবীতে মেয়র বরাবরে স্মারকলিপি পেশ

বিদ্যুৎ ও সিটির পানি বিল প্রত্যাহারের দাবীতে মেয়র বরাবরে স্মারকলিপি পেশ

বিদ্যুতের মূল্য বৃদ্ধির পায়তারা ও সিলেট সিটি কর্পোরেশনের পানির অস্বাভাবিক বিল বাড়ানো, এলপিজি গ্যাসের সিলিন্ডারের মূল্যবৃদ্ধি সহনীয় এবং বিদ্যুৎ ও